৫ বার আপিলের পর ফেরত পেয়েছি ৫ মাস আগের Suspended YouTube চ্যানেলটি।

0 115

হ্যালো বন্ধুরা কেমন আছেন সবাই ? আশা করি আল্লার রহমতে সবাই ভালো আছেন। আমি আজ আপনাদের সাথে Suspended YouTube Channel নিয়া আলোচনা করবো। আপনারা যারা ইউটিউবে কাজ করেন বা করেছিলেন তারা নিশ্চয় জানেন যে,২০১৬ সালের নভেম্বর মাস থেকে শুরু করে ২০১৭ সালের জানুয়ারি মাস পর্যন্ত ইউটিউব কর্তৃপক্ষ গণহারে ইউটিউব চ্যানেল সাসপেন্ড করেছিল। ইউটিউবের মাথা মনে হয় ঠিক ছিলো না কারন তারা কেন যে ভাল ভাল চ্যানেল সাসপেন্ড করেছিল।

https://www.youtube.com/watch?v=dN1PLM0YuaY&t=187s

ইউটিউব কোন কারন ছাড়া কাউকে বা কোন জাতিকে সাসপেন্ড করে না। বিশেষ করে এশিয়া মহাদেশে বর্তমানে বা ২০১৬ সালে ইউটিউবারের অভাব ছিল না। কিন্তু নতুন নতুন ইউটিউবার তখন সর্ট কাট ডলার আয় করার জন্য এডাল্ট কনটেন্ট নিয়া কাজ করে ইউটিউবের মাথা খারাপ করে দিয়েছিলো। তাছাড়া দেখা যায় যে, অনেকে দ্রুত ইউটিউব থেকে আয় করার জন্য দল করে VPN দিয়া কাজ করেছিল। মুল কথা এশিয়ার নতুন ইউটিউবার রা  স্পার্ম শুরু করে দিয়েছিলো যে তার কোন শেষ ছিলো না।

অবশেষে ইউটিউব কর্তৃপক্ষ এর সমাধান করার জন্য গণহারে ইউটিউব চ্যানেল সাসপেন্ড করেছিলো। কিন্তু তারা কোন যাচাই বাচাই না করে সকল ইউটিউব চ্যানেলকে সাসপেন্ড করে দিয়েছিল। যাদের ইউটিউব চ্যানেল এ কোন কপিরাইট বা ইউটিউবের সকল প্রকার নিয়ম কানুন মেনে চলার পরও তাদের ইউটিউব চ্যানেল সাসপেন্ড হয়েগেছে। কিন্তু আমি শিউর করে বলতে  পারবো যদি আপনাদের ইউটিউবের কোন প্রকার কপিরাইট কনটেন্ট না থাকে এবং আপনি যদি কোন স্পার্মিং না করেন তাহলে  শিউর আপনি ইউটিউব চ্যানেল ফেরত পাবেন। আমি ৫ বার আপিল করার পর ৫ মাস আগের আমার পুরাতন ইউটিউবে চ্যানেল ফেরত পেয়েছি। আপনারা আমার নিয়মে আপিল করলে হইতো আপনারা আপনাদের সাসপেন্ড ইউটিউব চ্যানেল ফেরত পাবেন।

উত্তর দিন