সিলেটে প্রথম অপারেটর হিসাবে ৩.৫জি সেবা চালু করল রবি

3 110

দেশের অন্যতম শীর্ষস্থানীয় মোবাইল ফোন অপারেটর রবি আজিয়াটা লিমিটেড আজ সোবমবার সন্ধ্যায় অন্য সব অপারেটরের আগে সিলেটের গ্রাহকদের জন্য ৩.৫ জি সেবার উদ্বোধন করেছে।

সিলেট মহানগরের একটি অভিজাত হোটেলে ঢাকায় রবি’র চিফ টেকনোলজি অফিসার একেএম মোর্শেদের সাথে প্রথম ৩.৫জি ভিডিও কল করে নেটওয়ার্কের উদ্বোধন করেন সিলেটের ডিভিশনাল কমিশনার এন এম জিয়াউল আলম।

এসময় শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক ড. মোহাম্মদ জাফর ইকবালও সিটিও’র সাথে কথা কলটির পর ৩.৫ জি নেটওয়ার্কের বিভিন্ন সেবা তুলে ধরে অতিথিদের সামনে একটি প্রদর্শনী উপস্থাপন করা হয়।

এমন ঐতিহাসিক একটি ঘটনার অংশ হতে পেরে খুব আনন্দিত বলে জানিয়েছেন রবি’র ভারপ্রাপ্ত সিইও ও চিফ হিউম্যান রিসোর্সেস অফিসার (সিএইচআরও) মতিউল ইসলাম নওশাদ।

তিনি বলেন, “আমাদের জীবনধারার আমুল পরিবর্তন করতে যাচ্ছে ৩.৫জি।” এ প্রযুক্তির সুবিধা সম্পর্কে বলতে গিয়ে তিনি বলেন, “ই-শিক্ষা, ই-স্বাস্থ্য, ই-কমার্স ও অন্যান্য সামাজিক সেবাগুলো হতের কাছে চলে আসায় আর্থ-সামাজিক উন্নয়ন তরান্বিত হবে।”

৩.৫জি’র কার্যকারিতা পরীক্ষা করতে রবি’র নেটওয়ার্ক দ্রুত ছড়িয়ে দেয়া হবে জানিয়ে ভারপ্রাপ্ত সিইও বলেন, “শুধু দ্রুত বাস্তবায়নই নয়, আমাদের দৃষ্টি মানসম্পন্ন গ্রাহক সেবার প্রতি।”

অক্টোবরের মধ্যে ঢাকা, চট্টগ্রাম ও সিলেটে রবি গ্রাহকরা বাণিজ্যিকভাবে ৩.৫জি সেবা উপভোগ করতে পারবেন।

তবে এর আগে সিলেটের জিন্দাবাজারে রবি’র ওয়াক-ইন-সেন্টারে (ডব্লিওআইসি) বা নির্ধারিত কয়েকটি স্থানে থ্রি-জি সুবিধা সম্বলিত

হ্যান্ডসেটের মাধ্যমে থ্রিজি নেটওয়ার্কের আনন্দ নিতে পারবেন গ্রাহকরা। এছাড়া তারা ঢাকা ও চট্টগ্রামের কয়েকটি নির্ধানিত স্থানেও রবি’র ৩.৫জি সেবা উপভোগ করতে

আগামী কয়েক সপ্তাহ জুড়ে ধাপে ধাপে কয়েকটি জেলায় বাণিজ্যিকভাবে ৩.৫জি প্রযুক্তি চালু এবং গ্রাহকদের আকর্ষণীয় ও সাশ্রয়ী ইন্টারনেট প্যাকেজ সুবিধা দিবে অপারেটরটি।

রবি আশা করছে চলতি বছরের শেষ নাগাদ তাদের মোট গ্রাহকের ৪০ শতাংশ এবং ইন্টারনেট ব্যবহারকারীদর ৬০ শতাংশকে ৩.৫জি’র নেটওয়ার্কের আওতায় নিয়ে আসতে পারবে।

২০১৪ সালের প্রথম প্রান্তিকের মধ্যে তাদের ৬০ শতাংশেরও বেশি গ্রাহককে এ প্রযুক্তির আওতায় নিয়ে আসবে।

গত ২৮ সেপ্টেম্বর গুলশানে রবি’র কর্পোরেট অফিসের মিলনায়তনে ঢাকা ও চট্টগ্রামে একযোগে রবি’র ৩.৫জি সেবার উদ্বোধন করেন ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রী অ্যাডভোকেট সাহারা খাতুন।

 

priyotech

3 মন্তব্য
  1. আকাশ বলেছেন

    চমৎকার পোস্টটি শেয়ার করার জন্য থ্যাংকস ভাই!

  2. নাঈম প্রধান বলেছেন

    শেয়ার করার জন্য অনেক ধন্যবাদ।

  3. হামিদ খান বলেছেন

    ধন্যবাদ, সুন্দর পোস্ট

উত্তর দিন