অ্যান্ড্রয়েড মোবাইলের ব্যাটারি লাইফ বুস্ট করার ৫টি টিপস

5 125

অ্যান্ড্রয়েড মোবাইল ফোনের ক্ষেত্রে একটি গুরুত্বপূর্ণ বিষয় হল ব্যাটারি । আপনার স্মার্টফোন টি অ্যান্ড্রয়েড, উইন্ডোজ অথবা আইফোন যাই হোক না কেন সব ক্ষেত্রেই ব্যাটারি লাইফ এর গুরুত্ব সমান। সাধারণত হাই ইন্ড ডিভাইস গুলোতে একদিনের বেশি চার্জ থাকে না। বেশ কিছুদিন ধরে আমার Samsung Galaxy Nexus মোবাইলের চার্জ খুব দ্রুত শেষ হয়ে যাচ্ছে। যদিও Galaxy Nexus ডুয়াল কোর ডিভাইস। চার্জ শেষ হওয়ার কারণ গুলো আমার জানা ছিল, ব্যাটারি লাইফ বাড়ানোর জন্য ইন্টারনেটে কিছু টিপস পেলাম তাই শেয়ার করছি সবার সাথে…

ব্রাইট ওয়ালপেপারঃ 

ব্রাইট ওয়ালপেপারের ব্যাপারে আমি আমার আগের পোস্ট অ্যান্ড্রয়েড ব্যাটারি সেভিং টিপস এ লিখেছিলাম। আজ আবার লিখছি কারণ আপনার ডিভাইসে যদি OLED, AMOLED অথবা Super AMOLED ডিসপ্লে থাকে সেক্ষেত্রে ব্রাইট ওয়ালপেপার এবং থিম কমপক্ষে আপনার ডিভাইসের ২০% চার্জ খুব দ্রুত শেষ করে দিবে। তবে LCD ডিসপ্লের ক্ষেত্রে সাধারণত এই সমস্যা হয় না। কারণ  OLED, AMOLED(active-matrix organic light-emitting diode) অথবা Super AMOLED ডিসপ্লে আলো তৈরি করার জন্য Light Emitting Diode ব্যবহার করে থাকে যা ব্রাইট বা উজ্জ্বল কালার ডিসপ্লে করার সময় অধিক পরিমান চার্জ ইউজ করলেও, কালো বা ডার্ক কালার ডিসপ্লে করার সময় কম চার্জ খরচ করে। তাই AMOLED ডিসপ্লে সমৃদ্ধ ডিভাইস গুলোর ক্ষেত্রে ব্রাইট ওয়ালপেপার এবং থিমের পরিবর্তে ডার্ক ওয়ালপেপার অথবা ডার্ক থিম ব্যবহার করাই ভাল।

অ্যাডবি ফ্ল্যাশ প্লেয়ার এবং ফ্ল্যাশ ব্রাউজিংঃ 

অনেকেই স্মার্টফোনে অ্যাডবি ফ্ল্যাশ প্লেয়ার ইউজ করে থাকেন। আপনি যখন বিভিন্ন ফ্ল্যাশ ব্রাউজার দিয়ে ব্রাউজ করেন তখন বিভিন্ন ফ্ল্যাশ কন্টেন্ট যেমন অ্যাড এবং ভিডিও লোড হয় যা আপনার ডিভাইসের চার্জ শেষ হওয়ার পিছনে বিশাল আকারে দায়ী। তাই আপনার ব্রাউজারে যদি on demand ফ্ল্যাশ প্লাগইন সেটিং থাকে তাহলে অবশ্যই তা ব্যবহার করুন। এছাড়া আপনি আপনার ব্রাউজার সেটিং থেকে ফ্ল্যাশ ডিজাবল করে দিতে পারেন। যখন প্রয়োজন হবে তখন তা এনাবল করে নিলেই হবে।

ফোন ভাইব্রেসনঃ

অ্যান্ড্রয়েড ডিভাইসের আরেকটি ফিচার যা আপনার ব্যাটারির চার্জ কমিয়ে দেয় তা হল ভাইব্রেসন। যখন কল আসে এবং আপনি ডিসপ্লে তে টাচ করেন তখনই ফোন ভাইব্রেট করে । এছাড়া অনেকেই কী বোর্ডে ভাইব্রেসন অন করে রাখে, ফলে টাইপ করার সময় বার বার ডিভাইস ভাইব্রেট হয়। আর এই ভাইব্রেসনের জন্য যে চার্জের প্রয়োজন হয় তা আপনার ব্যাটারি থেকেই আসে। তাই এই ভাইব্রেসন অফ করে রাখলে ব্যাটারির চার্জ অনেকটাই সেভ হবে। Settings > Sound  এ যেয়ে vibrate when ringingএবং Vibrate on touch অপশন দুইটি অফ করে দিন।

CYMERA_20130921_074230

 

অ্যাপ আপডেটঃ

সাধারণত কিছুদিন পর পর অ্যান্ড্রয়েড ডিভাইসে ইন্সটল করা অ্যাপ গুলোর জন্য আপডেট আসে। আমরা অনেকেই ভাবি এই আপডেট গুলো ইন্সটল করার তেমন কোন  প্রয়োজনীয়তা নেই। কিন্তু এই ধারণা সম্পূর্ণ ভুল। নতুন আপডেট গুলোতে যেমন বিভিন্ন বাগ ফিক্স করা হয় ঠিক তেমনি অ্যাপটি যেন আপনার ডিভাইসের কম চার্জ ইউজ করে সেদিকেও লক্ষ্য রাখেন ডেভেলপাররা। তাই নিয়মিত আপনার ডিভাইসে ইন্সটল করা অ্যাপ গুলো আপডেট করা ব্যাটারি সেভিং এর ক্ষেত্রে অনেকটা সহায়ক।

ব্যাকগ্রাউন্ড অ্যাপ এবং লাইভ উইজেটঃ

 

অ্যান্ড্রয়েড ডিভাইস এ অনেক অ্যাপ ক্লোজ করার পর অ্যাপ গুলো ব্যাকগ্রউন্ড এ চলতে থাকে। যার ফলে অনেক চার্জ নষ্ট হয়। তাই কোন টাস্ক কিলার দিয়ে অ্যাপ গুলো কিল বা force close করে দেয়া ভাল। এছাড়া বিভিন্ন অপ্রয়োজনীয় অ্যাপ যেগুলো সব সময় ডাটা কানেকশন অ্যাক্টিভ রাখে সেগুলো আনইন্সটল করে দেয়া ভাল। এছাড়া ফোনের অটো সিঙ্ক অন করা থাকলে তা নেট ইউজ করতে থাকে যা চার্জ শেষ করে ফেলে। আর লাইভ উইজেট যেমনঃ ওয়েদার উইজেট, ফেসবুক, ম্যাসেজিং ইত্যাদি  আপডেট হওয়ার জন্য নেট ইউজ করে। তাই অটো রিফ্রেশ ফ্রিকোয়েন্সি কমিয়ে দেয়া ভাল।

কমেন্ট করুন

5 মন্তব্য
  1. আকাশ বলেছেন

    আকর্ষণীয় পোস্ট উপহার দেওয়ার জন্য ধন্যবাদ।

  2. Nafiz Ur Rahman বলেছেন

    পোস্টটি শেয়ার করার জন্য ধন্যবাদ…..

  3. হামিদ খান বলেছেন

    thanks for share

  4. নাঈম প্রধান বলেছেন

    সুন্দর পোস্ট । শেয়ার করার জন্য ধন্যবাদ।

  5. লিটন হাফিজুর বলেছেন

    খুব কাজের পোসট।শেয়ার করার জন্য ধন্যবাদ আপনাকে।

উত্তর দিন