পবিত্র ঈদে বাংলাদেশে স্যামসাংয়ের বিনামূল্যে রেফ্রিজারেটর ‘চেক এন্ড ক্লিনিং সার্ভিস’

0 1,097

বিশ্বের শীর্ষস্থানীয় কনজ্যুমার ইলেক্ট্রনিক্স পণ্য নির্মাতা প্রতিষ্ঠান হিসেবে বাংলাদেশের ক্রেতাদের কাছে স্যামসাং অন্যতম। বিশেষ করে রেফ্রিজারেটরের ভিন্নতা, বিশ্বাসযোগ্যতা, বৈচিত্র্যতা এবং বিক্রয় পরবর্তী সেবার ক্ষেত্রে দেশি ক্রেতাদের পছন্দের শীর্ষে রয়েছে স্যামসাং-এর পণ্য।

বিক্রয় পরবর্তী সেবার ধারাবাহিক কার্যক্রমের অংশ হিসেবে রেফ্রিজারেটর যত্ন তথা পরিষ্কারের চর্চা বজায় রাখার ব্যাপারে স্যামসাং বাংলাদেশ সম্প্রতি একটি ক্যাম্পেইন চালু করেছে। এই ক্যাম্পেইনের অংশ হিসেবে, স্যামসাংয়ের সার্ভিস টিম এই ঈদকে ঘিরে সারাদেশে ৩০০-এরও বেশি রেফ্রিজারেটর বিনামূল্যে ক্লিনিং সেবা প্রদান করবে। স্যামসাং সার্ভিস টিমের অভিজ্ঞ কারিগরেরা রেফ্রিজারেটরের ওয়ারেন্টি শেষ হয়ে যাওয়া ক্রেতাদের বিনামূল্যে ক্লিনিং সেবা প্রদান করেছেন।

এই সেবা প্রসঙ্গে, স্যামসাংয়ের একজন ক্রেতা মোহাম্মদ শাখাওয়াত হোসেন বলেন, “ঈদের সময় একটি নির্ভরযোগ্য রেফ্রিজারেটর থাকা খুবই জরুরি। বিশেষত ঈদুল আযহায় কেননা এ সময় কোরবানীর পরে আমরা প্রচুর পরিমাণে মাংস পেয়ে থাকি। ঈদের সময় আমাদের খরচ বৃদ্ধি পায়। তাই এই সময়ে রেফ্রিজারেটররের মেরামত আমাদের জন্য বাড়তি খরচ। স্যামসাং ব্যবহারকারী যাদের ওয়ারেন্টি নেই তাদের জন্য স্যামসাংয়ের বিনামূল্যে রেফ্রিজারেটর সার্ভিসিং সেবার উদ্যোগকে সাধুবাদ জানাই। এবং এই আয়োজনের মাধ্যমে আমরা রেফ্রিজারেটর পরিষ্কারের সঠিক উপায়গুলোও জানার সুযোগ পেয়েছি।”

এ প্রসঙ্গে স্যামসাং বাংলাদেশের ব্যবস্থাপনা পরিচালক স্যাংওয়ান ইয়ুন বলেন, “আমরা বিভিন্ন ধরনের সার্ভিস ক্যাম্পেইন পরিচালনা করে থাকি। আমাদের ক্রেতারা যেসব অ্যাপ্লায়েন্সেস কিনছে সেগুলোর সর্বোত্তম সেবা নিশ্চিৎ করাই আমাদের লক্ষ্য। সামনে ঈদ-উল-আযহা আর তাই এ সময়টিতে রেফ্রিজারেটর পরিষ্কারের বিষয়টি বেশ জরুরি হয়ে পড়ে। আমাদের এই ক্যাম্পেইন ক্রেতাদের রেফ্রিজারেটর রক্ষণাবেক্ষণের ব্যাপারে অনুপ্রাণিত করবে।”

সময়মতো রেফ্রিজারেটর পরিস্কার করা একটি ভালো চর্চা যা গ্রাহকদের রেফ্রিজারেটরের দীর্ঘস্থায়ীত্ব বাড়িয়ে তুলতে এবং সঠিক স্বাস্থ্যবিধি বজায় রাখতে সহায়তা করে।

স্যামসাংয়ের ৩০০ লিটার এবং এর অধিক ক্যাপাসিটির রেফ্রিজারেটর রয়েছে এমন সব ক্রেতারা স্যামসাং কল সেন্টার (০৮০০-০৩০০-৩০০) নম্বরে (টোল ফ্রি) যোগাযোগ করে নিবন্ধন করে ক্লিনিং সেবার তারিখ ও সময় নির্ধারণ করতে পারবেন। আগামি ৮ আগস্ট, ২০১৯ তারিখ পর্যন্ত ক্যাম্পেইনটি চলবে।

সুত্রঃ ফোরথট পিআর, এশিয়াটিক থ্রি সিক্সটি

উত্তর দিন