Red Hat Enterprise Linux Server | Red Hat (RHEL) রেড হ্যাট এন্টারপ্রাইজ লিনাক্স সার্ভার (পোস্ট ১- ইন্সটলেশন)

1 421

 

rhel6

পোস্টটি শুধুমাত্র তাদের জন্য যারা বা যিনি রেড হ্যাট সম্পর্কে শিখতে চান বা ভবিষ্যতে লিনাক্স নির্ভর সার্ভারের কাজ করতে চান এবং এখন থেকে সকল বিষয় জানতে চান। এখানে RHEL 6 দিয়ে বিভিন্ন সার্ভিস করে দেখাবো যেমন ইন্সটল, Yum, User Management, Permission , Ftp Server, Web-server/Http, Samba Server, SSH, Database, Mail Server, DNS Server, NFS, ISCSI, LDAP, File & Partition,  Primary & Logical Volume Management, Kernel & related work, etc এবং বিস্তারিত আলোচনা করার চেষ্টা করবো। প্রথমে ওএস ইন্সটল সম্পর্কিত বিভিন্ন বিষয়/ধাপ এর পাশাপাশি অন্যান্য বিষয়ে আলোচনা করবো। আমি এখানে VMware Workstation 10 এর মাধ্যমে ওএস ইন্সটল করবো। VMWare হল ভার্চুয়াল মেশিন এর সফটওয়্যার। আপনি যদি চান তবে টরেন্ট হতে VMware Workstation 10 & RHEL 6 এর .exe & iso ফাইল ডাউনলোড করতে পারেন।

VMware এর মাধ্যমে ইন্সটল করার জন্য সফটওয়্যারটি ইন্সটল করে রান করুন। এবার আমরা প্রথমে ওএস ইন্সটল করার জন্য পিসি প্রস্তুত করবো। এজন্য  VMware Workstation> File > New Virtual Machine> Custom> Select Latest Ver. of VMWare> I Will Install the OS Later> Select Linux under Guest OS & Ver: Red Hat Ent Linux 6 >

OS selected

 

> You can change virtual machine saving location & name in here > Number of Processors 1 > Select RAM for Machine (I put here 2024MB) > Select Bridged Networking under Network Conection > LSI Logic> Virtual Disk Type SCSI > select Create a new virtual under Disk > Size 120GB আপনি চাইলে আরও বেশি দিতে পারেন

select diskinatall 4

 

 

>  Specify Disk file “Red Hat Enterprise Linux 6.vmdk” > Customize Hardware > Select iso file ছবি দেখে নিন & click advanced under iso

select iso

 

 

> Select both SATA & Legacy emulation > OK > Close > Finish.

এখন নতুন যে নামে মেশিনটি রেডি করলাম তা বাম পাশ হতে সিলেক্ট করে Power On the Virtual Machine এ ক্লিক করবো। তাহলে সরাসরি ISO হতে বুট শুরু হবে। VMWare হতে মাউস রিলিজ করার জন্য Ctrl+Alt প্রেস করতে হয়।

আপনি যদি সরাসরি পিসিতে ইন্সটল করতে চান তবে সিডি হতে বুট করুন। এবার প্রথম ওয়েলকাম স্ক্রীন এ ইন্সটল সিলেক্ট করুন।

 

inatall 1

 

এখানে যদি ডিস্ক টেস্ট বা মিডিয়া টেস্ট করতে বলা হয় তবে স্কিপ (SKIP) করুন।

inatall 2

 

 

ইন্সটল করার জন্য > ভাষা নির্বাচন করুন > কী বোর্ড নির্বাচন করুন (US English) > Device Basic Storage নির্বাচন করুন

 

inatall 3

> Hostname localhost.localdomain > Select Time Zone > Root Passowrd দিন (উইন্ডোজ এর ভাষায় administrator ), এই password পরবর্তীতে লগিন করার জন্য প্রয়োজন হবে > এবার আমরা পার্টিশন তৈরি করবো যা খুবই গুরুত্বপূর্ণ ধাপ। পার্টিশন তৈরি করার পূর্বে এর সম্পর্কে সংক্ষেপে কিছু আলোচনা –

 

“লিনাক্স সিস্টেমে সরবচ্ছ ডিরেক্টরি হল [/] অর্থাৎ রুট ডিরেক্টরি। অনন্য সকল ডিরেক্টরি এবং ফাইল সমূহ এর অন্তরগত।  উইন্ডোজ’ এ যেমন NTFS, FAT32 or FAT ফাইল সিস্টেম আছে, তেমনি লিনাক্স এ ext4, ext3, ext2, swap । লিনাক্স এ কোন পার্টিশন তৈরি করার সময় তা উইন্ডোজ এর মত ফরম্যাট করতে হয়। RHEL এর পুরাতন ভার্সন গুলোতে ext2, ext3 ছিল যা পরবর্তীতে আপডেট করে ext4 এ উন্নিত করা হয়েছে এবং বর্তমানে ডিফল্ট হিসাবে ext4 (extended 4) ব্যবহার হয়। তরে swap পার্টিশন তৈরি করার সময় কোন ফরম্যাট করতে হয় না কেননা এর টাইপ সম্পূর্ণ আলাদা (type=swap) । সংক্ষেপে বলতে গেলে Swap হল ভারচুয়াল মেমোরি। লিনাক্স এর ডিফল্ট পার্টিশন ৩ টি, /, /boot & swap। কিন্তু অনেক এর মতে সর্বনিম্ন পার্টিশন এর সংখ্যা হল ২ টি, / & /boot, (এটি ডিফল্ট পার্টিশন নয়) যেখানে swap এর অস্তিত নেই বা swap তৈরি করা হয় না। অন্যান্য গুরুত্বপূর্ণ পার্টিশন গুলো হল – /usr, /home, /var, /tmp । যদি শুধু ডিফল্ট পার্টিশন তৈরি করা হয় অর্থাৎ /, /boot & swap, তবে রুট (/) এর অধিনে অন্যান্য সকল গুরুত্বপূর্ণ ডিরেক্টরি গুলো সাব-ডিরেক্টরি হিসেবে তৈরি হয়, তবে যদি কোন কারনে সিস্টেম ক্রাশ করে বা নষ্ট হয়ে যায় তবে সকল ডাটা গুলো নষ্ট হয়ে যায় কেননা অন্যান্য গুরুত্বপূর্ণ ডিরেক্টরি গুলো ছিল রুট এর অন্তরগত বা রুট পার্টিশন এর অধিনে। কিন্তু যদি অন্যান্য গুরুত্বপূর্ণ ডিরেক্টরি গুলো আলাদা তৈরি করা হয় বা যায় তবে সেগুলো যদিও [/] রুট এর অন্তরগত বা অধিনে থাকে তবুও সেগুলো আলাদা পার্টিশন হিসেবে কাজ করে । তাই সিস্টেম ক্রাশ করলে বা নষ্ট হয়ে গেলেও, আলাদা ভাবে তৈরি করার কারনে সেগুলোর ডাটা অক্ষত থাকবে বা থাকে। অর্থাৎ ডিফল্ট পার্টিশন বাদে অনন্য পার্টিশন গুলো আলাদা ভাবে তৈরি করা হলে সেগুলো রুট এর অধিনে থাকবে ঠিকই কিন্ত এরা আলাদা পার্টিশন হবে। কোন পার্টিশন এর কাজ কি বা কি থাকে তা পরে আলোচনা করবো।’’ এই অংশ টুকু বিভিন্ন সাইট এবং বই হতে সাহায্য নিয়ে সাজিয়ে উল্লেখ করা হয়েছে।

এবার আমরা পার্টিশন তৈরি করবো। এখানে অনেক গুলো অপশন আছে যার সংক্ষেপে আলোচনাঃ

inatall 5 importent

 

Use all spaces: যদি একই হার্ডডিস্কে অন্য কোন ওএস ইন্সটল করা থাকে তবে সেই পার্টিশন গুলো ডিলিট হয়ে যাবে এবং অটোমেটিক ভাবে /, /boot, swap, /home & অতিরিক্ত স্পেস গুলো নিয়ে ফিজিক্যাল ভলিউম গ্রুপ তৈরি হবে ।

 

Replace Exciting Linux System(s): যদি একই হার্ডডিস্কে অন্য কোন ওএস( যেমন উইন্ডোজ) ইন্সটল করা থাকে তবে সেই পার্টিশন গুলো তেমনি থাকবে। তবে যদি কোন লিনাক্স পার্টিশন থেকে থাকে তবে তা ডিলিট হয়ে যাবে  এবং অটোমেটিক ভাবে /, /boot, swap, /home & অতিরিক্ত স্পেস গুলো নিয়ে ফিজিক্যাল ভলিউম গ্রুপ তৈরি হবে।

 

Shrink Current System: কোন পুরাতন পার্টিশন যদি থেকে থাকে তবে সেই পার্টিশন এর আব্যাবরিত বা ফাঁকা অংশ গুলোকে নিয়ে ডিফল্ট পার্টিশন তৈরি করবে।

Use Free Space: অন্য কোন ওএস( যেমন উইন্ডোজ) এর পার্টিশন গুলো তেমনি থাকবে। তবে উইন্ডোজ এর ভাষায় হার্ড ডিস্ক এর শুধু মাত্র Unallocated Space  নিয়ে কাজ হবে এবং অটোমেটিক ভাবে /, /boot, swap, /home & অতিরিক্ত স্পেস গুলো নিয়ে ফিজিক্যাল ভলিউম গ্রুপ তৈরি হবে।

Create custom Layout: আমরা আমাদের মত করে বা প্রয়োজন মত পার্টিশন সাজাতে বা বানাতে পারবো। এখন এই অপশন টি সিলেক্ট করে নেক্সট করবো।

নোট – আমরা যেহেতু এই মেশিন এ অনেক গুলো সার্ভিস টেস্ট করবো, তাই পার্টিশন গুলো সেই ভাবেই তৈরি করবো যেন আমাদের পরবর্তীতে সুবিধা হয়।

এখানে /dev/sda অন্তরগত ফ্রী স্পেস সিলেক্ট করে (১২২৮৭৯ এমবি, ১২০ জিবি অনুসারে) Create > Standard Partition > Mount Point = /, type=ext4, Size=80000 MB > OK

 

inatall 5 importent root 80000

একই ভাবে Create > Standard Partion > Mount Point = /boot, Type=ext4, Size=2000MB > OK

একই ভাবে Create > Standard Partion > Mount Point কোন কিছু দিবো না,  Type=swap, Size=4096MB > OK

inatall 6

 

এখন নেক্সট সিলেক্ট করবো > ফরম্যাট চাইলে Format দিবো > write changes to disk সিলেক্ট করবো [এখানে আমাদের তৈরি করা পার্টিশন গুলো ফরম্যাট হয়ে ব্যবহার উপযোগী হবে] > Boot Loader Option, এখানে চাইলে Boot Loader এ Password সেট করা যায় যেন কেও Boot Loader এডিট করতে না পারে, বুট Loader এ password দেয়া না থাকলে খুব সহজে রুট ইউজার এর password ব্রেক করা যায়। আমরা আপাতত এখানে কিছু না করেই পরবর্তী ধাপে যাবো next  >  এই পর্যায়ে আমরা ২ টি অপশন পাব যেখানে রয়েছে ডিফল্ট প্যাকেজ ইন্সটল এবং Customize Package ইন্সটল অপশন। আমরা ভবিষ্যৎ সুবিধার জন্য ডেক্সটপ desktop & Customize now সিলেক্ট করবো

 

inatall 7 customize

> এখানে বাম পাশের মেন্যু হতে শুধু মাত্র Desktop সিলেক্ট করে ডান পাশের সকল Packages এর উপর রাইট বাটন প্রেস করে Select all optional packages সিলেক্ট করবো এবং পরবর্তী ধাপে যাবো

 

inatall 8 customize

> এখন ইন্সটল শুরু হয়ে যাবে

 

inatall 9 installing

ইন্সটল শেষ হলে Restart Option আসবে। Restart দিবো।

 

 

inatall 10 install finished

 

Restart হয়ে WELCOME স্ক্রীন আসবে । Forward করবো।

 

Screenshot

License Information স্ক্রীন আসবে। Yes, I agree… অপশন সিলেক্ট করে next/forward করবো।

Screenshot-1

Setup Software Update এ আপাতত কোন পরিবর্তন না করে Forward করবো।

 

Screenshot-2

Create User: এখানে আমরা আপাতত কোন ইউজার তৈরি করবো না। পরবর্তীতে কমান্ড এর মাধ্যমে ইউজার তৈরি করবো। তাই সরাসরি Forward করবো। লিনাক্স এ প্রধান ইউজার হল root (রুট) ইউজার। আমরা যদিও কোন ইউজার তৈরি করিনি, তবুও ডিফল্ট ভাবে রুট ইউজার তৈরি হবে যিনি উইন্ডোজ এর ভাষায় Administrator ইউজার এর মত। সকল এবং সর্বচ্ছ ক্ষমতার অধিকারী।

Screenshot-3

 

Date & Time : এখানে টাইম ও তারিখ ঠিক করবো এবং Forward করবো।

 

Kdump: সংক্ষেপে এটি হল এমন একটি টুলস যা লিনাক্স এর কার্নেল (সংক্ষেপে কার্নেল হল লিনাক্স এর প্রান) ক্রাশ করলে রিকভারি করে থাকে কিংবা kexec ব্যবহার করে দ্বিতীয় কার্নেল দিয়ে মেশিন রান করে। এখানে সরাসরি ফরওয়ার্ড করবো এবং যদি কোন Error মেসেজ আসে তবে শুধু ওকে প্রেস করবো & Finish প্রেস করবো।

 

Screenshot-4Screenshot-5

 

তাহলে এখন আমাদের ইন্সটল করা OS রান হবে। ইউজার সিলেক্ট এর অপশন আসলে other সিলেক্ট করবো এবং ম্যানুয়ালি রুট ইউজার টাইপ করবো user=root & password হল ইন্সটল করার সময় আমরা যেটি দিয়েছিলাম।

 

account login

 

তাহলে আমাদের রেড হ্যাট সম্পূর্ণ ভাবে চালু হল। রুট ইউজার ব্যবহার করার জন্য একটি নোটিফিকেশান দিবে। Close করে দিবো।

 

root

 

 

 

গুরুত্বপূর্ণ পার্টিশন বা ডিরেক্টরি গুলো কাজ বা কি থাকে তা সংক্ষেপে আলোচনা করা হলঃ

/ (root) Directory = এর অভ্যন্তরে সকল ডিরেক্টরী বা Sub-Directory থাকে।

/home = ইউজার এর হোম ডিরেক্টরী

/boot = কার্নেল এবং বুট ফাইল থাকে .

/usr = সকল ইন্সটল ক্রিত প্যাকেজ এর লোকেশান এটি।

/var = সিস্টেম লগ ফাইল, মেইল, ক্যাশ ফাইল সহ প্রিন্টার এর তথ্য থাকে।

/tmp = Temporary ফাইল থাকে

Swap  = Swap হল ভারচুয়াল মেমোরি।

 

VMWare Workstation ইউজাররা এখন ফুল স্ক্রীন অপশন পাবেন না, কেননা ডিসপ্লে ড্রাইভার দেয়া হয়নি। VMWare এ ফুল স্ক্রীন করার জন্য এবং মাদার মেশিন হতে ফাইল আদান-প্রদান করার জন্য সহ মাউস ইজিলি ব্যবহার করার জন্য VMWare tools ইন্সটল করতে হবে যা পরবর্তী পোস্ট এ দেখানো হবে। ভাল লাগলে বা অন্য কোন সার্ভিস এর জন্য কমেন্ট করুন। তবে আমি প্রথমে যে সকল সার্ভিস এর নাম উল্লেখ করেছি সেগুলো পর্যায় ক্রমে পরবর্তী পোস্ট গুলোতে দেখাবো।

লিনাক্স এ সকল কমান্ড চালাতে হয় Terminal এ। টারমিনাল (Terminal ) ওপেন করার জন্য মাউস এর রাইট বারন প্রেস করে Open in Terminal সিলেক্ট করতে হয়।

Capture

লিনাক্স সিস্টেম Shutdown করার কমান্ড হল –

init ০ ( ০ হল আপনার নির্দেশিত রান লেভেল), রান লেভেল কি তা পরবর্তীতে আলোচনা করবো।

কিংবা

halt -p

 

আমি এর আগে কোন পোস্ট করিনি। তাই HD ছবি গুলো  আপলোড করার পর কি জন্য কোয়ালিটি খারাপ হল তা বুঝতে পারছি না। সেই সাথে পোস্ট এর প্রধান ইমেজ কি ভাবে দিবো তাও বুঝতে পারছি না।  কেও কোন টিপস দিলে পরবর্তী পোস্ট এ উপকৃত হব।

ধন্যবাদ।

অবসরের সঙ্গী হল বন্ধু-বান্ধব এবং আমার প্রিয় কম্পিউটার যা উইন্ডোজ ও লিনাক্স উভয়ই নির্ভর। আর কিছু বলার মত নেই।

1 টি মন্তব্য
  1. গ্রীন হোস্টিং বলেছেন

    অনেক দরকারী পোস্ট। অনেক অনেক ধন্যবাদ ভাই।

উত্তর দিন