এ্যাডসেন্স নামের সোনার হরিণটা এবার আপনার হাতের মুঠোয়- এই নিয়ে নিন আপনার এডসেন্স !!!

0 192

 

প্রিয় বন্ধরা কেমন আছেন সবাই? আশাকরি আল্লাহ তা-আলার অপার কৃপায় সকলে ভালই আছেন। অনেক ইচ্ছা থাকে আপনাদের সাথে নিয়মিত হব। কিন্তু হয়ে ওঠে না। কথা দিচ্ছি এবার থেকে নিয়মিত হব। আমরা যারা ব্লগিংকে পেশা হিসাবে বেছে নিতে চা্য় তারা জানি  এ্যাডসেন্স তাদের তাদের কাছে কতটা্ আরাধ্যের বস্তু । ব্লগের জন্য এডসেন্স এর পেছনে ছুটে ছুটে একেবারে ক্লান্ত হয়ে পড়েছেন। কিন্তু এ্যাডসেন্স নামক সোনার হরিণটা আপনার নিকট অধরাই থেকে গেছে। এবার আপনি ও পারবেন এডসেন্স নামক সোনা হরিন টা ধরতে। আসবে আপনার হাতের নাগালে। তার আগে আসুন এ্যাডসেন্স বিষয়ে কিছুটা আলোচনা করা যাক।

এ্যাডসেন্স কি?

এ্যাডসেন্স হল বিশ্ব বিখ্যাত গুগলের একটি এডভারটাইজিং এজেন্সি। বিভিন্ন পন্যের/সেবার প্রচার ও বি্ক্রয়ের জন্য বিভিন্ন ব্যাক্তি ও প্রতিষ্ঠান এই্ এ্যাডসেন্স এর নিকট চুক্তিবদ্ধ। তারা তাদের পন্য/সেবার প্রচার ও বিক্রয়ের জন্য এ্যাডসেন্সকে অর্থ প্রদান করে। এডসেন্স তাদের পন্য/সেবার বিজ্ঞাপন বিভিন্ন সাইটে প্রচার করে। এই প্রচার বাবদ এ্যাডসেন্স কর্তৃপক্ষ তার প্রাপ্য  অর্থে একটি অংশ সাইটের মালিক গনকে প্রদান করে। তাহলে কথা হল এডসেন্স কেন? এডসেন্স এর মত আরও অনেক এ্যাডভার্টাইজিং কোম্পানী  আছে ! হা আছে তবে-

  • এডসেনস এর মত তাদের বিশ্ব ব্যাপী বিস্তৃত নেটওয়ার্ক নেই।
  • অন্যান্য কম্পানীর থেকে তারা বেশি হারে সাইটে মালিকগনকে প্রদান করে।
  • এডসেন্স এ রয়েছে মাল্টি ইনকামের ব্যবস্থা।

আপনি কি এ্যাডসেন্স পাবেন?

হ্যাঁ আপনিও পেতে পারেন এ্যাডসেন্স। পুর্বে এ্যাডসেন্স পাওয়া যতটা সহজ ছিল বাংলাদেশ থেকে এখন এ্যাডসেন্স পাাওয়াটা ততটা কঠিন। আপনাকে বেশ কতকগুলি শর্ত পালন করতে হবে। শর্ত গুলি নিম্ন রুপ…….

  •  আপনার একটি ব্লগ বা ও্য়েবসাইট থাকতে হবে( ফ্রি ব্লগ থেকে আবেদন করতে হলে আপনা অবশ্যই গুগলের ব্লগার.কম একটি ব্লগ খাকতে হবে।)
  • ২০ থেকে ২৫ টি কন্টেন্ট থাকতে হবে।
  • আর্টিকেলগুলো বা কন্টেন্টগুলো ইউনিক হতে হবে অর্থাৎ কোন কাট, কপি, পেস্ট কন্টেন্ট গ্রহনযোগ্য নয়।
  • সাইট টি তে মেনু হিসাবে সমৃদ্ধ হোম পেইজ, এ্যাবাউট আস, কন্ট্যাক্ট আস, প্রাইভেসি/পলিসি ইত্যাদি থাকতে হবে।
  • সাইটের ল্যাংগুয়েজ অবশ্যই বাংলা হলে চলবে না। সাপরটেড ল্যাংগুয়েজ অর্থাৎ ইংলিশ হতে হবে। তবে এডসেন্স প্রাপ্তির পর  কৌশলে বাংলা ব্লগে/সাইটে ও  এটি ব্যবহার করা যাবে।
  • সাইটে যথেষ্ট ভিজিটর থাকতে হবে।
  • আপনার  সাইটে বয়স কম্পক্ষে ৬ মাস হতে হবে।
  • সাইটে পেইজ র‌্যাঙক ভাল থাকতে হবে।

মোটামুটি ভাবে উপরোক্ত নিয়ম বা শর্ত পালন করে আপনি এডসেন্স এর জন্য আবেদন করলে আশা করা যায় আপনি এ্যাডসেন্স নামক সোনার হরিণটি  অবশ্যই পাবেন। আবেদন করার আগে আরও ভালভাবে জেনে নিন এ্যাডসেন্স এর শর্তা বলীসমুহ

আমরা অনেকেই উপরোক্ত নিয়ম কানুন আংশিক মেনে আবেদন করি। ফলে আবেদন প্রত্যাখাত হয়। একবার আবেদন প্র্ত্যাখাত হলে পুনরায় এ্যাডসেন্স কোয়ালিফাই করা অ্ত্যন্ত দুরহ।

ব্লগ বা ওয়েবসাইট ছাড়া এ্যাডসেন্স পাওয়ার আর কোন সহজ উপায় আছে কি?

হ্যাঁ আছে, ব্লগ/ওয়েব সাইট ছাড়াও আপনি উপরোক্ত নিয়মের তোয়াক্কা না করেও এ্যাডসেন্স পেতে পারেন অতি সহজে। অনেক উপায় থাকতে পারে। তবে আমার জানা মতে দুটি পদ্ধতি উত্তম ও সহজ।

দ্বিতীয়টি কোন এক ক্ষনে আলোচনা করা যাবে, কথা দিচ্ছি।  আজ আলোচনা করব কিভাবে ইউটিউবের মাধ্যমে  অতি সহজে আপনার কাঙ্খিত সোনার হরিণটি হাতের নাগালে পাবেন। উল্লেখ্য যে ইউটিউবের মাধ্যমে প্রাপ্ত এ্যাডসেনস্ একাউন্ট আপনি আপনার ব্লগে ও ব্যবহার করতে পারবেন। সেক্ষেত্রে শুধু মাত্র আপনার ব্লগের বযস ছয়মাস বা তদুর্ধ হলেই হল।

ইউটিউবের মাধ্যমে গুগল এ্যাডসেন্স পাওযার সহজ উপায়

ইউটিউবের মাধ্যমে এডসেন্স পেতে হলে আপনাকে  সর্বপ্রথম একটি ফ্রেস নিউ/নতুন জিমেইল এড্রেস থাকা লাগবে। তো  খুলে ফেলুন একটি নতুন জিমেইলএকাউন্ট

উপরোক্ত ফরম ঠিকঠাক মত পুরন করে Next step এ ক্লিক করুন্। একাউন্ট খোলা শেষ হলে  সাইন আউট করে  এবার আপনি চলে যান এই এড্রেসে অর্থাৎ ইউটিউবের  ঠিকানায় ।  নতুন উইন্ডো  আসলে ডান পার্শ্বে অবস্থিত Sign in   এ ক্লিক করুন। আপনার নতুন জি-মেইল ও পাসওয়ার্ড দিয়ে Sign in  বাটনে আবার ক্লিক করুন।

একটি নতু উইন্ডো আসবে। সেখান থেকে ডান পার্শ্বে অবস্থিত   UPload  বাটনে ক্লিক। নীচের চিত্রের ন্যায় দেখতে পাবেন। এখানে গিয়ে ৩-৪ মিনিট দৈর্ঘ্যর ২/৩ টি ভিডিও আপলোড করুন।

নীচের চিত্রের ন্যায় দেখাবে এবং আপলোড হতে সময়  নেবে। অপেক্ষা করুন। দেখুন চিত্রটি…..

এ পর্য্যন্ত আমার মনে হয় টিউটোরিয়ালের কাজ শেষ । এর পর যা শিখবেন হাতে কলমে তাই আমি বানিয়েছি একটি ভিডিও টিউটোরিয়াল। এটি দেখে ঠিক ঠাক মত কাজ করলে আমি নিশ্চত যে, আপনি ২ থেকে ৩ ঘন্টার মধ্যে আপনি আপনার কাঙ্খিত এ্যাডসেন্স একাউন্টটি পেয়ে যাবেন। যদিও তারা আপনাকে একবার্তার মাধ্যমে ৭ দিন সময় নিবে। তো নিয়ে নিন  আপনার কাঙ্খিত সোনার হরিনটি।

উত্তর দিন