আপনার ওর্য়াডপ্রেস সাইটি করুন ১০০ ভাগ নিরাপদ -প্রয়োজনীয় টুলস্ এবং রির্সোস

4 87

একটা  সাইট জনপ্রিয় হবার পর যে বিষয়টি নিয়ে সবচেয়ে বেশি ভাবতে হয় সেটি হল সাইটির সিকিউরিটি  ।আপনি একজন ওয়েব ডেভালপার বিভিন্ন সময় মার্কেটপ্লেসে ওয়েবসাইট মেইন্টেনেনস বিভিন্ন কাজ আসবে  তাই ওয়ার্ডপ্রেস  সাইটের নিরাপত্ত ও পরিচালনা সম্পর্কে কিছু টিপস জেনে নিন।

আপনার ওয়েবসাইটের   Malware এবং Security চেক করতে  এই সাইটটি  ব্যবহার করুন ।

১।       আপনার ওয়ার্ডপ্রেস সবসময় আপডেট রাখুন কারন ৭০% ভাগ ক্ষেত্রে দেখা যায়  ওর্য়েপ্রেসের পুরাতন র্ভাসনই সিকিউরিটি এট্যাক হয় ।

২।       আপনার থিম এবং প্লাগিন সবসময় আপডেট রাখুন ।

৩।      আপনার ওয়ার্ডপ্রেস সাইট থেকে ইনএকটিভ প্লাগিন এবং থিম সরিয়ে ফেলুন।

৪।       ওয়েব র্সাভারের বিভিন্ন সফটওয়ার তারা নিয়মিত আপডেট করে কিনা জেনে নিন । এমন হোস্টিং ব্যবহার করুন যারা তাদের ব্যবহৃত বিভিন্ন সফটওয়ার নিয়মিত আপডেট করে।

৫।       আপনার কম্পিউটারের বিভিন্ন সফটওয়্যার যেগুলো ওয়ার্ডপ্রেস রিলেটেড এবং বিশেষ করে এন্টি ভাইরাসটি সবসময় আপডেট রাখুন ।

৬।       আপনার ব্রাউজারের নিরাপত্তা নিশ্চিত করুন ।কিছু এডঅন ব্যবহার করুন যা আপনার ব্রাউজারকে ভাইরাস হতে নিরাপদ রাখবে। ফায়ারফক্স এর জন্য এই এ্যাডঅনটি  ব্যবহার করতে পারেন।

৭।       সিকিউটি রিকস্ এর অন্যতম একটি বড় বিষয় হচ্ছে পাসওর্য়াড । আপনি একটি স্ট্রং পাসওর্য়াড ব্যবহার করুন। এজন্য বিভিন্ন  পাসওর্য়াড জেনারেটর  টুল ব্যবহার করতে পারেন।

৮।      আপনার পাসওর্য়াডটি নিয়মিত change করুন ।এবং অবশ্যই পাসওর্য়াড কোন social মিডিয়াতে শেয়ার করবেন না  ।পাসওর্য়াড মেন্টেইন করার জন্য এই টুলগুলো ব্যবহার  করতে পারেন।

১.   Keepass 

২.   lastpass 

৯।       আপানার সাইটে যেই প্লাগিনগুলো ব্যবহার করছেন তার সম্বন্ধে নিশ্চিত হয়ে নিন । কারন অনঅভিজ্ঞ প্লাগিন ডেভালপাররা তাদের প্লাগিনের নিরাপত্তা বিষয়ে সচেতন থাকে না । প্লাগিন ব্যবহার করার আগে অবশ্যই এর রিভিউ দেখে নিবেন।

১০।     আপনি বিভিন্ন ধরনের সিকিউরিটি প্লাগিন ব্যবহার করুন ।যেমন-

১.   Better_wp_up

২.   Bulletproof-security

৩.   All-in-one

১১।     অবশ্যই আপনার সাইটের ব্যাকআপ রাখতে ভুলবেন না ।

১২।     ফ্রি থিম ব্যবহার থেকে বিরত থাকাই ভাল । কারন ফ্রি থিম আপনার সিকিউরিটি রিক্স বাড়িয়ে দেয়।

১৩।     ড্যাশর্বোড থেকে ফাইল এডিটিং এর অপশন বন্ধ করে দিন।

১৪।     লগিনের জন্য কতবার চেষ্টা করা যাবে সেই বিষয়টি নির্দিষ্ট করে দিন।

১৫।     অথর আরকাইভ থেকে আপনার ইউজারনেম হাইড করে দিন্।

১৬।     সবশেষ যে  বিষয়টি  বলব সেটি হল আপনার ওয়ার্ডপ্রেস সাইটকে ক্লিন করুন যেভাবে আপনার রান্না ঘরকে ক্লিন করেন । কিভাবে ক্লিন করবেন এ বিষয়ে না হয় আর একদিন পোষ্ট দিব।

ওয়েব ডেভেলপমেন্ট সম্পর্কিত  আরও অনেক অনেক রিসোর্সে এবং  টিউটোরিয়াল পেতে আমার  ব্লগে  ঘুরে আসতে পারেন।

 

4 মন্তব্য
  1. ব্লগার ভাই বলেছেন

    ভালো লাগলো।

    আইডিয়া বাজ

  2. almamunbd32 বলেছেন

    infortent post……………….
    thanks for share

    1. onnovinno বলেছেন

      ধন্যবাদ

উত্তর দিন