ব্লগের পেজ কি ও পেজ তৈরি করবেন যে ভাবে।

বিসমিল্লাহির রাহমানির রাহিম।

আসসালামু আলাইকুম। কেমন আছেন সবাই? আমি মেহেদী হাসান। আজকে আবার হাজির হলাম নতুন একটা টিউন নিয়ে। তবে আজকে যে টিউন নিয়ে আলোচনা করতে চলেছি সেটা আপনার ব্লগের জন্য একটু গুরুত্বপূর্ণ বটে। অনেকেই আছে যারা তাদের ব্লগের এর জন্য পেজ তৈরি করতে পারেন না। আজকে সেই পেজ নিয়েই আলোচনা করতে চলেছি। আশা করি সাথেই থাকবেন।

বিস্তারিত

আজ চারিদিকে ব্লগিং এর বিপ্লব শুরু হয়ে গেছে। যেখানে বাংলাদেশও পিছিয়ে নেই। আমাদের দেশের তরুণ সমাজের মধ্যে যারা ইন্টারনেট ব্যবহার করেন তাদের মধ্যে অধিকাংশের কমপক্ষে একটি করে ব্লগ সাইট বা ওয়েব সাইট আছে। আর সেটি ফ্রি-ই হোক বা পেইড হোক। এমন অনেক মানুষ আছেন যারা এখন পর্যন্ত বোঝেন না যে ব্লগ কি এবং এর দ্বারা কি করা হয়। তাদেও বোঝানোর জন্য আমার এ ক্ষুদ্র প্রচেষ্টা। তাহলে চলুন ব্লগ সর্ম্পকে জেনে নিই।
ব্লগ হলো একটি ডাইরীর অনুরূপ। ডাইরীতে যেমন আমরা আমাদের মনের ভাব লিখে রাখি, অনলাইন বা ওয়েবে এটি লেখার নামই হলো ব্লগ। আপনার ব্যক্তিগত ডাইরীতে আপনি বিভিন্ন বিষয় নিয়ে লেখেন ঠিক তেমনি আপনি ব্লগিংও বিভিন্ন বিষয়ের উপর করতে পারেন। ব্লগ যেকোন ভাষায় হতে পারে। একজন ব্যক্তি ডাইরীতে যেমন বাঁধাহীন ভাবে লেখেন তিনি তার ব্লগেও বাঁধাহীন ভাবে লিখতে পারেন।
ব্লগ কেন ব্যবহার করা হয়?
আমরা আমাদের ব্যক্তিগত ডাইরীতে যা কিছু লিখি তা শুধু আমদের বন্ধু-বান্ধব, আত্মীয়, পরিবার পরিজন এবং আশেপাশের কতিপয় মানুষের কাছে পৌঁছে। আর আপনি যদি ব্লগ লিখেন তবে তা সারা বিশ্বের মানুষের কাছে পোঁছবে। ব্লগিং করার মাধ্যমে আপনি আপনার শখ, কার্যকলাপ, কবিতা, গান, বাড়ি, পরিবার, তথ্য প্রযুক্তি, আপনার ব্যক্তিগত চিন্তা চেতনা ইত্যাদি সারা বিশ্বের সামনে তুলে ধরতে পারবেন এবং সে সর্ম্পকে আপনার মতামত প্রতাশ করতে পারবেন।
আমি মনেকরি বিশ্ববাসীর কাছে নিজেকে, নিজের দেশ ও সংস্কৃতিকে উপস্থাপন করার অন্যতম উপায় হলো ব্লগিং। এছাড়া নিজস্ব পণ্য ও দ্রব্য সামগ্রীর বৈশিষ্ট্য তুলে ধরতে ব্লগিং করা অপরিহার্য।
লগ করতে কি টাকা লাগে?
ব্লগিং করা সম্পূর্ন ফ্রি। কিছু অলাভজনক প্রতিষ্ঠান রয়েছে যারা বিনামূল্যে ব্লগ তৈরি করার সুযোগ দিয়ে থাকে। ব্লগ করতে আপনাকে কোন টাকা ব্যয় করতে হবে না বরং আপনি আপনার ব্লগ থেকে টাকা উপার্জন করতে পারবেন। এখন মনে প্রশ্ন আসতে পারে যে, ব্লগ করলে কে এবং কেন আমাকে টাকা দেবে ? অনেক প্রতিষ্ঠিত কোম্পানি যেমন, মাইক্রোসফট, ইন্টেল, আইবিএম ইত্যাদি এসব কোম্পানি বিভিন্ন Ads Network এর মাধ্যমে ওয়েবসাইট বা ব্লগে বিজ্ঞাপন দিয়ে থাকে। আপনি যদি কোন Ads Network এর পাবলিশার হয়ে থাকেন তবে তারা আপনার ব্লগে বিজ্ঞাপন দিবে। আপনার ব্লগের ভিজিটররা যদি সেই বিজ্ঞাপনে ক্লিক করে তাহলে একটি নির্দিষ্ট পরিমান অর্থ পাবেন।

পেজ কি?

এখন নিচের ছবিটা দেখে নিন।

কি দেখেছেন?
এখন যদি আপনাকে বলে হয় এখানে কি কি মেনু আছে সেটা কি বলতে পারবেন?
জানি একটু ঘাঁটাঘাঁটি করলেই পেয়ে যাবেন।
তো চলুন আমি আপনাকে একটু ধারণা দিয়ে দেই।
ছবিটা দেখুন।
“New Page” এখান থেকেই আপনি নতুন পেজ তৈরি করতে পারবেন।
এর পরে দেখুন “Publish” লেখা আছে। এখান থেকে পেজ পাবলিশ করতে পারবেন।
এর পরে দেখুন “Revert to Draft” লেখা আছে। এটা পেজ আনপাবলিশ করতে পারবেন, আবার পাবলিশ করতে পারবেন।
এর পর দেখুন “Delete” আইকন আছে। এটা আপনার পেজকে ডিলিট করতে সাহায্য।
কি ভাবে পেজ তৈরি করতে হয় ভিডিওতে দেখুন।

আশা করি বুঝতে পেরেছেন? টিউনে যদি কোনো ভুল ত্রুটি থাকে তাহলে ক্ষমার দৃষ্টিতে দেখবেন। আগামি টিউটোরিয়ালে থাকবে পেজ নিয়ে আলোচনা। ধিরে ধিরে ব্লগের সমস্থ কিছু নিয়ে আলোকপাত করব। আশা করি সাথেই থাকবেন। আর হ্যাঁ ভিডিওর ডিস্ক্রিশনে কয়েটা টেমপ্লেট এর লিংক আছে আপনাদের উপকারে হবে তাই দিয়েছি। মিডিয়া ফায়ারে আপলোড করা আছে।সমস্যা হবে না আশা করি।

আপনার যদি কোনো সমস্যা হয় তাহলে আমাকে মেসেজ করুন। নিম্ন লিখিত লিংক গুলোতে আমাকে পাবেন। আজ বিদায় নিচ্ছি দেখা হবে আগামীতে। সবাই ভাল থাকুন সুস্থ্য থাকুন। সব শেষে একটা কথা বলি। কপি পেষ্ট মুক্ত PcHelpLine গড়তে নিজের মেধাকে কাজে লাগান। আপনিও পারবেন কিছু শেখাতে। ধন্যবাদ সবাইকে। মেতে থাকুন প্রযুক্তির সুরে।

প্লাস করুণ আমাকে
সমস্যা হলে মেসেজ করুণ ফেইজবুকে
ফলো করুণ টুইটারে

মন্তব্য করুন