ওয়ালটন প্রিমো এস৬ ডুয়াল-Primo S6 Dual স্মার্টফোনটির ফুল হ্যান্ডস অন রিভিউ

0

ওয়ালটন সুন্দর নীল এবং কালো কালারে বাজারে এনেছে তাদের আরেকটি আকর্ষণীয় স্মার্টফোন প্রিমো এস৬ এর সাক্সেসর প্রিমো এস৬ ডুয়াল । প্রিমো এস৬ এর তুলনায় এর মুল পার্থক্যটা হল এর রিয়ার প্যানেলের ডুয়াল ক্যামেরা মডিউল, যা এস৬ এ ছিল না। ডিভাইসটি লেটেস্ট  অ্যান্ড্রয়েড ৮.১.০ অপারেটিং সিস্টেম চালিত, যা সত্যিই অ্যান্ড্রয়েড প্রেমী বিশেষ করে যারা লেটেস্ট আপডেটে থাকতে ভালোবাসেন তাদের জন্য দারুন খবর । স্মার্টফোনটির দাম ১৪৯৯৯ বা ১৫০০০ টাকা।

‘প্রিমো এস৬ ডুয়াল’ এর মুল ফিচারসঃ 

  • ৪জি সাপোর্টেড স্মার্টফোন
  • মেড ইন বাংলাদেশ
  • ৩ জিবি র‍্যাম এবং ৩২ জিবি স্টোরেজ
  • অ্যান্ড্রয়েড ৮.১.০ অরিও অপারেটিং সিস্টেম
  • ১৩+২ মেগাপিক্সেল ডুয়াল রিয়ার ক্যামেরা , ৮ মেগাপিক্সেল ফ্রন্ট ক্যামেরা
  • ৩৫০০ এমএএইচ লিথিয়াম পলিমার ব্যাটারি

ইউজার ইন্টারফেস

ডিসপ্লে এবং বডি

 

বরাবর এর মত প্ল্যাস্টিক গ্লাস বডি, রাউন্ড ও কার্ভড  ফিনিশ সম্পন্ন  ডিভাইসটি  আপনার হাতে একটি দারুন প্রিমিয়াম ফিল এনে দেবে। ডিভাইসটির উচ্চতা ১৫৩ মিলিমিটার এবং প্রস্হ ৭৩.৪ মিলিমিটার। ডিভাইসটি ৮.৩ ন্যানোমিটার পুরু এবং ব্যাটারি সহ এর ওজন ১৫৭ গ্রাম মাত্র; বলতে গেলে এটিও অন্যসব  এর মতন হালকা পাতলা ডিভাইস। প্রিমো এস৬ ডুয়াল নীল এবং কালো এই দুটি কালারে পাওয়া যাবে।

 

এই ডিভাইসটিতে রয়েছে ৫.৭ ইঞ্চি ইন-সেল আইপিএস প্রযুক্তির ডিসপ্লে যার রেজুলেসন ১৪৪০*৭২০ পিক্সেল। ডিসপ্লেটি সাইড দিয়ে ২.৫ ডি কার্ভড। আর একটি বিষয় সেটি হল ডিভাইসটি ১৮ঃ৯ রেসিও ফুল ভিউ ডিসপ্লে। ডিভাইসটি আপটু ৫ ফিঙ্গার মাল্টি টাচ সাপোর্টেড।

ক্যামেরা

 

ডিভাইসটির মুল আকর্ষণ হল এর পিছনের ডুয়াল ক্যামেরা মডিউল।একটি ১৩ মেগাপিক্সেল এবং আরেকটি ২ মেগাপিক্সেল সেন্সর নিয়ে এর ক্যামেরা মডিউলটি গঠিত। এর সামনের ৮ মেগাপিক্সেল  ক্যামেরা এর বিশেষ ফেস ডিটেকশন লক ফিচার এর জন্য উপযুক্ত। সামনে পিছে উভয় পাশেই ক্যামেরা ফ্ল্যাশ উপস্থিত; যেখানে সামনের ফ্ল্যাশটা সফট।

 

রিয়ার ক্যামেরাটিতে Face Detection, Digital Zoom, Self-timer, Touch Shot এর মতন ফিচারস রয়েছে। ক্যামেরা সেটিংস ও মোড হিসেবে রয়েছে: Normal Mode, Professional Mode, Portrait Mode, Fingerprint Capture, Face Beauty, Auto Scene, Slow Motion, Time-lapse,Backlight, Panorama, Filter Mode, Night Mode।

 

আর ফ্রন্ট ক্যামেরা এর ফিচারস হিসেবে রয়েছেঃ Face Detection, Digital Zoom, Self-timer, Touch Shot। ক্যামেরা সেটিংস ও মোড হিসেবে রয়েছে: Exposure Control, Front Mirror, Geo-tagging, Fingerprint Capture, Face Beauty, Filter Mode।

হার্ডওয়্যার

 

ডিভাইস টিতে রয়েছে মিডিয়াটেক এর একটি ১.৫ গিগাহার্জ ক্ষমতা সম্পন্ন কোয়াড কোর প্রসেসর। জিপিইউ হিসেবে রয়েছে পাওয়ার ভিআর জিআর ৮১০০ । ডিভাইসটিতে রয়েছে ৩ জিবি র‍্যাম এবং রয়েছে ৩২ জিবি ইন্টারনাল স্টোরেজ।

 

দাম হিসেবে এই স্পেসিফিকেসন মানান সই বলা চলে। থ্রিডি গেমস হেভি অ্যাপলিকেশন খুব সহজেই চলবে এই স্মার্টফোনটি দিয়ে। আন্টুটু বেঞ্চমার্ক অ্যাপটিতে এই স্মার্টফোনটির স্কোর এসেছে ৪৩৫৮২।

স্পেশাল ফিচারসঃ

  • স্প্লিট স্ক্রীন
  • অটিজি+রিভার্স চার্জিং
  • স্মার্ট আই প্রোটেকশন
  • নোটিফিকেশন লাইট

ফেসবুক থেকে মন্তব্যঃ

Leave A Reply